মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

এক নজরে

                                                                                                                        এক নজরে
    গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষিত ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে গৃহিত বিভিন্ন প্রকল্পের মধ্যে মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট (এমআরপি) এন্ড মেশিন রিডেবল ভিসা (এমআরভি) প্রকল্প অন্যতম। জেলাওয়ারী জনগণের দ্বারগোড়ায় এমআরপি পাসপোর্ট পৌছে দেয়ার লক্ষ্যে নবসৃষ্ট আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিস, গাইবান্ধা গত ৩০/১১/২০১৪ খ্রি: তারিখে জেলা প্রশাসক, গাইবান্ধা মহোদয়ের উপস্থিতিতে এমআরপি কার্যক্রম শুরু হয়। বর্তমানে গাইবান্ধা জেলাবাসীকে পাসপোর্ট সম্পর্কিত যাবতীয় সেবা আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিস, গাইবান্ধা থেকে প্রদান করা হচ্ছে।

মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট (এমআরপি) আবেদনকারীদের জ্ঞাতার্থে:-

    মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট (এমআরপি) করতে আবেদনকারীকে স্ব-শরীরে পাসপোর্ট অফিসে উপস্থিত হয়ে আবেদনপত্র জমা দেয়া, ছবি তোলা, আঙ্গুলের ছাপ ও স্বাক্ষর প্রদান করতে হয়। আবেদন পত্র জমা দেয়ার সময় জাতীয় পরিচয়পত্র/ জন্ম নিবন্ধন সনদ পত্রের সত্যায়িত কপি সহ মুলকপি অত্যাবশ্যকীয়।
    জরুরী প্রয়োজনে ( যেমন চিকিৎসা, জরুরী অফিসিয়াল কর্তব্য ইত্যাদি) মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট দ্রুত পেতে যথাযথ কর্তৃপক্ষের স্বরনাপন্ন হলে বিশেষ সুবিধা প্রদান করা হয়। এজন্য অতিরিক্ত ফিসের প্রয়োজন হয় না।
    মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট তৈরী হলে আবেদনকারীর প্রদত্ত মোবাইল নম্বরে এস.এম.এস এর মাধ্যমে ম্যাসেজ প্রদান করা হয় এবং আবেদনকারীকে উপস্থিত হয়ে তৈরি পাসপোর্ট গ্রহন করতে হয়।
    পাসপোর্ট সম্পর্কে সর্বশেষ তথ্য জানতে যে কোন মোবাইল হতে ৬৯৬৯ নম্বরে এস.এম.এস করুন।  (মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে লিখুন MRP<স্পেস>বার কোডের নিচের আইডি নম্বর (৩২০১০০০০০০০০০৩৭)  লিখে ৬৯৬৯ নম্বরে পাঠিয়ে দিন অথবা ৮১৩১৯৩ নম্বরে ফোন করুন।


* মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট আবেদন ফরম এবং সরকারী চাকুরীজীবিদের এনওসি (NOC) ফরম কোথায় পাবেন?
    মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট ফরম এবং NOC ফরম নিকটস্থ পাসপোর্ট অফিস বা ইন্টারনেট (www.dip.gov.bd) থেকে সংগ্রহ করবেন।

* মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট আবেদন ফরম পূরণের নিয়মাবলী:-

  • আবেদন ফরম পূরন করার পূর্বে আবেদন ফরমের শেষ পৃষ্ঠায় বর্ণিত সাধারণ নির্দেশনাসমূহ অনুসরণ করবেন।
  • আবেদন ফরমের তারকা (*) চিহ্নিত ক্রমিক নংগুলো অবশ্যই পূরণ করবেন।
  • আবেদন ফরমের ক্রমিক নং ১ ব্যতীত অন্যান্য ক্রমিক ইংরেজীতে বড় অক্ষরে (ঈধঢ়রঃধষ খবঃঃবৎং) পূরণ করবেন।
  • আবেদন ফরমে নামের সংক্ষিপ্তরুপের পরিবর্তে পূর্ণরুপে (যেমন- মো: / গউ. এর স্থলে মোহাম্মদ/ গঙঐঅগগঅউ)  লিখা বাঞ্চনীয়। শিক্ষাগত বা চাকুরীসুত্রে প্রাপ্ত পদবীসমূহ  (যেমন- ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, ডক্টর, পিএইচডি ইত্যাদি) নামের অংশ হিসেব পরিগণিত হবে না। ফরমের ক্রমিক নং ৩ পূরনের ক্ষেত্রে, একাধিক অংশ থাকলে প্রতি অংশের মাঝখানে ১টি ঘর শূন্য রেখে পূরণ করতে হবে। আবেদনকারীর পিতা, মাতা, স্বামী/স্ত্রী মৃত হলেও, তার/তাদের নামের পূর্বে 'মৃত/মরহুম/খধঃব' লেখা যাবে না।
  • অসম্পূর্ণ, ঘসামাঝা ও প্লুইডিং আবেদনপত্র গ্রহণযোগ্য নয়।

* মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট আবেদন ফরম সত্যায়নের নিয়মাবলী:-

১। আবেদনকারীর সদ্য তোলা ল্যাব প্রিন্ট পাসপোর্ট সাইজের (৫৫x৪৫ মি:মি:) রঙ্গিন ছবি (কম্পিউটার প্রিন্ট গ্রহন যোগ্য নয়) প্রতিটি ফরমে আঠা দিয়ে লাগানোর পর পরিচিত একই সত্যায়নকারীকর্তৃক এমনভাবে সত্যায়ন করতে হবে যেন সত্যায়নকারীর স্বাক্ষর ও সীল অর্ধেক ছবির উপর ও অর্ধেক আবেদন পত্রের উপর পড়ে। অপ্রাপ্তবয়স্ক (১৫ বছরের কম) আবেদনকারীর ক্ষেত্রে অতিরিক্ত আবেদনকারীর পিতা ও মাতার একটি করে রঙিন  (৩০ x ২৫মি: মি:) ছবি প্রতিটি ফরমে আঠা দিয়ে লাগানোর পর সত্যায়ন করতে হবে। আবেদনপত্রের ০৪ (চার) নং পৃষ্ঠার উপরে বর্ণিত প্রত্যয়ন অংশ সত্যায়নকারীর আবাসিক ঠিকানাসহ পূরন পূর্বক সত্যায়নকারী স্বাক্ষর করবেন।
 

* মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট আবেদন ফরম ও ছবি যে সকল ব্যক্তিগণ প্রত্যয়ন ও সত্যায়ন করতে পারবেন:-
    সংসদ সদস্য, সিটি কর্পোরেশনের মেয়র, ডেপুটি মেয়র ও কাউন্সিলরগণ, গেজেটেড কর্মকর্তা, পাবলিক বিশ্ববিদ্যলয়ের শিক্ষক, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান, ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান, পৌরসভার মেয়র ও পৌরকাউন্সিলরগন, বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক, বেসরকারী কলেজের অধ্যক্ষ, বেসরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক, জাতীয় দৈনিক পত্রিকার সম্পাদক, নোটারী পাবলিক ও আধাসরকারী /স্বায়ত্তশাষিত/রাষ্ট্রায়ত্ব সংস্থার জাতীয় বেতন স্কেলের ৭ম ও তদুর্ধ গ্রেডের কর্মকর্তাগণ।


* মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট (এমআরপি) এর জন্য কোথায় এবং কত টাকা জমা দিবেন:-
    সোনালী ব্যাংকের নির্ধারিত শাখা এবং আরো ০৫ (পাঁচ)টি অনলাইন ব্যাংক যেমন- ব্যাংক এশিয়া, ট্রাষ্ট ব্যাংক, ঢাকা ব্যাংক, প্রিমিয়ার ব্যাংক ও ওয়ান ব্যাংকে।
জরুরী- ১৫% ভ্যাট সহ ৬,৯০০/- ( পুলিশ প্রতিবেদন প্রাপ্তি সাপেক্ষ্যে ১০ (দশ) দিন)।  
সাধারণ-১৫% ভ্যাট সহ ৩,৪৫০/-(পুলিশ প্রতিবেদন প্রাপ্তি সাপেক্ষ্যে ২২(বাইশ) দিন)।  

* সাধারণ আবেদনকারীর ক্ষেত্রে মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট (এমআরপি) এর জন্য আবেদনের নিয়মাবলী:-
১। আবেদনকারীকে স্ব-শরীরে উপস্থিত হয়ে আবেদন পত্র জমা প্রদান করতে হবে।

২। নতুন পাসপোর্টর ক্ষেত্রে পরিচিত একই সত্যায়নকারী কর্তৃক সকল কাগজপত্র সত্যায়িত পূর্বক   
   ০২(দুই) প্রস্থ আবেদন পত্র দাখিল করতে হবে। আবেদন পত্রে নি¤œ লিখিত কাগজপত্রাদি  
   অবশ্যই সংযুক্ত করতে হবে-
    (ক)  জাতীয় পরিচয়পত্র অথবা জন্ম নিবন্ধন সনদ এর ০২ (দুই) প্রস্থ সত্যায়িত ছায়ালিপি।
     (খ)  প্রযোজ্য ক্ষেত্রে প্রাসিঙ্গক টেকনিক্যাল সনদ সমুহের  (যেমন- ডাক্তার, ইঞ্জিয়ার, ড্রাইভার  ইত্যাদি) ০২ (দুই) প্রস্থ সত্যায়িত ছায়ালিপি।

৩।  সমর্পনকৃত (সারেন্ডারড)-দের ক্ষেত্রে পূরাতন পাসপোর্টের সত্যায়িত ছায়ালিপি প্রদান করতে  হবে এবং  পুরাতন পাসপোর্ট অবশ্যই সাথে আনতে হবে।

* সরকারী, আধাসরকারী, স্বায়ত্তশাষিত ও রাষ্ট্রায়ত্ব সংস্থার স্থায়ী কর্মকতা/কর্মচারী, অবসরপ্রাপ্ত সরকারী চাকুরীজীবি ও তাদের নির্ভরশীলদের  ক্ষেত্রে মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট এর আবেদনের নিয়মাবলী:-
১। আবেদনকারীকে স্ব-শরীরে উপস্থিত হয়ে আবেদনপত্র জমা প্রদান করতে হবে।
২। সরকারী, আধাসরকারী, স্বায়ত্তশাষিত ও রাষ্ট্রায়ত্ব সংস্থার স্থায়ী কর্মকতা/কর্মচারী, অবসরপ্রাপ্ত সরকারী চাকুরীজীবি ও তাদের নির্ভরশীল স্ত্রী/ স্বামী এবং সরকারী চাকুরীজীবির ১৫(পনের) বৎসরের কম বয়সের সন্তানদের ক্ষেত্রে পরিচিত একই সত্যায়নকারী কর্তৃক সকল কাগজপত্র সত্যায়িত পূর্বক ০১(এক) প্রস্থ আবেদন পত্র দাখিল করতে হবে। আবেদন পত্রে নি¤œ লিখিত কাগজপত্রাদি অবশ্যই সংযুকÍ করতে হবে-
(ক) জাতীয় পরিচয় পত্র অথবা জন্ম নিবন্ধন সনদ এর ০১(এক) কপি সত্যায়িত ছায়ালিপি।
(খ)  প্রযোজ্য ক্ষেত্রে প্রাসঙ্গিক জিও (GO)/ ন্যূনতম জেলা পর্যায়ের প্রধান কর্মকর্তা কর্তৃক প্রদত্ত
      এনওসি (NOC) মূল কপি দাখিল করতে হবে।
(গ) এলপিআর এ থাকা কালীন সময়ে অবসর কালীন ছুটির আদেশ এর সত্যায়িত ছায়ালিপি প্রদান করতে হবে এবং মূল কপি সঙ্গে আনতে হবে।
(ঘ) চাকুরী হইতে অবসর প্রাপ্তদের পেনশনের বই এর সত্যায়িত ছায়ালিপি প্রদান করতে হবে এবং মূল বই সঙ্গে আনতে হবে ।
(ঙ) স্ত্রীর/ সন্তানের আবেদনের বেলায় স্বামীর/ পিতার ঘঙঈ/ অবসরকালীন ছুটির আদেশ/ পেনশন বই-এর  সত্যায়িত ছায়ালিপি ও প্রত্যয়নপত্র প্রদান  করতে হবে।
৩। আধাসরকারি, স্বায়ত্তশাষিত ও রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার স্থায়ী কর্মকর্তা/ কর্মচারীদের নির্ভরশীল স্ত্রী ও সন্তানদের পাসপোর্টের ক্ষেত্রে ০২(দুই) কপি পূরনকৃত সত্যায়িত পাসপোর্ট ফরম দাখিল করতে       হবে।
৪। সমর্পনকৃত (সারেন্ডারড)-দের ক্ষেত্রে পূরাতন পাসপোর্টের সত্যায়িত ছায়ালিপি প্রদান করতে হবে।

* কূটনৈতিক পাসপোর্ট লাভেরযোগ্য আবেদনকারীগনকে পূরণকৃত ফরম   ও সংযুক্তিসমূহ পররাষ্ট্রমন্ত্রনালয়ে জমা দিতে হবে।

ছবি


সংযুক্তি


সংযুক্তি (একাধিক)



Share with :

Facebook Twitter